৭ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ || ২২শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

নোয়াখালীর সবচেয়ে ছোট উপজেলা চাটখিলে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ঘরে ঢুকে এক প্রবাসীর স্ত্রীকে ধর্ষণ ও ধর্ষণের ভিডিও চিত্র ধারণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। গেল বুধবার ভোরে উপজেলার একটি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। দুপুরে নির্যাতনের শিকার ওই নারী (২৯) চাটখিল থানায় একটি ধর্ষণ মামলা করেছেন।

মামলার পর পুলিশ অভিযান চালিয়ে অভিযুক্ত মুজিবুল রহমান শরীফকে (৩২) উপজেলার নোয়াখলা ইউনিয়নের ইয়াছিন হাজীর বাজার থেকে গ্রেপ্তার করেছে। শরীফকে গ্রেপ্তারের পর রাতে তার দেয়া তথ্যে অভিযান চালিয়ে তার ঘর থেকে অস্ত্র ও গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।

গ্রেপ্তার শরীফ নোয়াখলা গ্রামের রফিকুল ইসলাম খোকনের ছেলে। তিনি চাটখিল উপজেলার নোয়াখলা ইউনিয়ন যুবলীগের দীর্ঘদিনের মেয়াদোত্তীর্ণ কমিটির সভাপতি।

থানায় করা অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, সৌদি প্রবাসীর স্ত্রী ওই নারী তার শ্বশুর বাড়িতে আট ও  তিন বছরের দুটি শিশু সন্তান নিয়ে বুধবার নিজ কক্ষে ঘুমিয়েছিলেন। ভোরে শরীফ কৌশলে তার বসতঘরের দরজা খুলে ঘরে ঢুকে তার হাত-মুখ চেপে ধরে। এ সময় তিনি চিৎকার দিলে শরীফের হাতে থাকা ধারালো অস্ত্র দেখিয়ে তাকে হত্যার হুমকি দেয়।

অভিযোগ সূত্রে আরও জানা যায়, এসময় ওই নারীর চিৎকারে তার শিশু সন্তানরা ঘুম থেকে জেগে উঠলে তাদের গলা কেটে হত্যার হুমকি দেয় শরীফ। এক পর্যায়ে শিশু দুটিকে অন্য একটি কক্ষে আটকে রেখে ওই গৃহবধূকে ধর্ষণ করে সে।

নির্যাতনের শিকার নারী জানান, ধর্ষণের সময় তার মুখাবয়বে ও শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত করে শরীফ। ধর্ষণের পর নির্যাতিতা নারীকে বিবস্ত্র ও উলঙ্গ করে নিজের ব্যবহৃত মোবাইল ফোন দিয়ে তার ছবি ও ভিডিও চিত্র ধারণ করে নিয়ে যায় শরীফ। পরবর্তীতে আবারও ধর্ষণের হুমকি দিয়ে এতে সহায়তা না করলে এই ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়ার হুমকি দিয়ে যায় শরীফ।

এ ঘটনায় বুধবার দুপুরে নির্যাতনের শিকার প্রবাসীর স্ত্রী তার দুইজন নিকট আত্মীয়কে নিয়ে চাটখিল থানায় অভিযোগ করেন।

আর পড়ুন:   সালাহ উদ্দিন এখন প্রধানমন্ত্রীর পিএস

চাটখিল থানার ওসি মো. আনোয়ারুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, গৃহবধূর অভিযোগের ভিত্তিতে সন্ত্রাসী শরীফকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ওই গৃহবধূকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে ও জবানবন্দি রেকর্ডের জন্য আদালতে পাঠানো হয়েছে।

তিনি জানান, গ্রেপ্তার শরীফের বিরুদ্ধে চাটখিল থানায় অস্ত্র, ডাকাতির প্রস্তুতি, মারামরিসহ বিভিন্ন সন্ত্রাসী কার্যকলাপের ঘটনায় আটটি মামলা রয়েছে। তাকে বৃহস্পতিবার আদালতে হাজির করা হবে।

এর আগে গত ২ সেপ্টেম্বর নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে ৩৫ বছর বয়সী এক গৃহবধূর বাড়িতে ঢুকে তাকে বিবস্ত্র করে শারীরিকভাবে নির্যাতন চালায় এবং তার ভিডিও ধারণ করে একদল যুবক। এ ঘটনার একমাস পর ৪ অক্টোবর ওই ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়।