৬ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ || ২১শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

সরকারি সব হাসপাতালে শয্যা ও আইসিও বাড়ানো, স্বাস্থ্যব্যবস্থার বিকেন্দ্রীকরণ, বিচারবহির্ভুত হত্যাকাণ্ড বন্ধ করা, প্রয়োজনে সামারি ট্রায়ালে দ্রুত বিচারকাজ সম্পন্ন করা, রাষ্ট্রের সর্বস্তরে বাংলাভাষার প্রচলন ও অবিলম্বে নামফলকে বাংলাভাষার প্রাধান্যের দাবীতে চট্টগ্রাম গণঅধিকার চর্চাকেন্দ্রের উদ্যোগে ও বাংলাদেশের মুক্তিসংগ্রাম ও মুক্তিযুদ্ধ গবেষণা কেন্দ্র ট্রাস্ট চট্টগ্রাম , বাংলাদেশ নারীমুক্তি কেন্দ্র, একাত্তরের ঘাতক দালাল নিমূল কমিটি চট্টগ্রাম, বিজয় ৭১সহ বিভিন্ন সংসংগঠনের অংশগ্রহণে গত ২ সেপ্টেম্বর বিকেলে আন্দরকিল্লায়  পৃথক দুটি পথসভা অনুষ্ঠিত হয়।

গণঅধিকার চর্চা কেন্দ্রের যুগ্ন-আহ্বায়ক সোলেমান খানের সভাপতিত্বে ও জয়নুদ্দিন জয়ের উপস্থাপনায় পৃথক দুটি পথসভায় বক্তব্য রাখেন গণঅধিকার চর্চাকেন্দ্রের চেয়ারম্যান ডা. মাহফুজুর রহমান, মহাসচিব মশিউর রহমান খান,মুক্তিযোদ্ধা আনোয়ার খান, সোলায়মান খান, এডভোকেট ইউসুফ, শওকত বাংগালী, জসিম উদ্দিন মোবারক,আসমা আক্তার,সহিদ শিশু,আবু জাফর মাহমুদ,আরাফাত মান্নান ঝিনুক, বেলাল হোসেন, আর কে রুবেল,সুচিত্রা গুহ টুম্পা, ফরিদা ইয়াসমিন, মো,সায়েম,মুরাদ,প্রকোশলী সুমন প্রমুখ। পথসভায় ভারতের একমাত্র বাঙালি রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখার্জির প্রয়াণে গভীর শোকপ্রকাশ করা হয়।বিচারবর্হিভূত হত্যাকাণ্ড অবিলম্বে বন্ধের দাবী জানিয়েছেন বক্তারা। চসিক প্রশাসক খোরশেদ আলম সুজনের প্রতি সাইনবোর্ডে ৬০ভাগ বাংলা লেখা আইন কার্যকর করার দাবী জানিয়ে প্রশাসকের সকল কর্মকাণ্ডের প্রতি অকুণ্ঠ সমর্থন ব্যক্ত করে নগরবাসীকে তাঁর পাশে থাকার উদাত্ত আহবান জানান।