৫ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ || ১৯শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালের কার্যনির্বাহী কমিটির সাবেক প্রেসিডেন্ট (সাবেক পানি সম্পদ মন্ত্রী) ইঞ্জিনিয়ার এল কে সিদ্দিকী ও সাবেক জেনারেল সেক্রেটারি (টিএসপি এর সাবেক এম.ডি ও বিসিআইসি এর সাবেক পরিচালক (প্রশাসন)) জমিউল ইসলাম স্মরণে গত ৪ আগস্ট এক শোক সভার আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন কার্যনির্বাহী কমিটির ভারপ্রাপ্ত প্রেসিডেন্ট এস এম মোরশেদ হোসেন। অনুষ্ঠানে ইঞ্জিনিয়ার এল কে সিদ্দিকী ও জমিউল ইসলামের জীবনী ও কর্মকাণ্ড নিয়ে আলোচনায় অংশ নেন, কার্যনির্বাহী কমিটির জেনারেল সেক্রেটারি ডা. আঞ্জুমান আরা ইসলাম, কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য রেখা আলম চৌধুরী, অধ্যক্ষ লায়ন ড. মোহাম্মদ সানাউল্লাহ, মো. আহছান উল্লাহ, মো. জাহিদুল হাসান, খায়েজ আহমেদ ভূঁইয়া, মেডিকেল কলেজের প্রিন্সিপাল প্রফেসর এ এস এম মোস্তাক আহমেদ, হাসপাতালের পরিচালক (প্রশাসন) ডা. মোঃ নূরুল হকসহ হাসপাতালের বিভিন্ন স্তরের কর্মচারীবৃন্দ। বক্তারা বলেন, ইঞ্জিনিয়ার এল কে সিদ্দিকী ও জমিউল ইসলাম ছিলেন, দক্ষ প্রশাসক ও মহৎপ্রাণ ব্যক্তি। তাঁরা এই হাসপাতালের জন্য যে ত্যাগ ও সংগ্রাম করে গেছেন তা অকল্পনীয়। বক্তারা আরো বলেন, তাঁরা যখন এই হাসপাতালের দায়িত্ব নিয়েছিলেন তখন হাসপাতালের সবচেয়ে বড় সমস্যা ছিল অর্থ সমস্যা। তাঁরা হাসপাতালের অর্থ সংকট নিরসনে সরকারের কাছে এবং মানুষের দ্বারে দ্বারে গিয়েছেন। হাসপাতালের যেকোনো সমস্যা সমাধানের জন্য তাঁরা তাঁদের সবটুকু দিয়ে চেষ্টা করেছেন। তাঁদের কাছে এই হাসপাতাল ছিল সন্তানের মত। তাঁদের এই অবদান ও অক্লান্ত পরিশ্রমের ফলে তৎকালীন শিশু হাসপাতাল আজকের এই অবস্থানে এসে পৌঁছেছে। সভায় তাঁদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে বিশেষ দোয়া হাসপাতাল মসজিদে মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করা হয়। শোক সভায় হাসপাতাল, মেডিকেল কলেজ ও নার্সিং ইনস্টিটিউটের বিপুল সংখ্যক কর্মকর্তা ও কর্মচারী অংশ নেন।