[bangla_date] || [english_date]

 

নিজস্ব প্রতিবেদক *

সিরাজগঞ্জের তাড়াশে একই পরিবারের তিন জনকে কুপিয়ে ও গলা কেটে হত্যা করা হয়েছে। মঙ্গলবার (৩০ জানুয়ারি) সকাল সাড়ে ৮টার দিকে তাড়াশ পৌর শহরের বারোয়ারি বটতলা মহল্লার নিজ বাড়ি থেকে তাদের লাশ উদ্ধারে কাজ করছে পুলিশ।

নিহতরা হলেন- তাড়াশ পৌর শহরের বারোয়ারী বটতলা এলাকার কালিচরণ সরকারের ছেলে বিকাশ সরকার (৪৫), তার স্ত্রী স্বর্ণা রানী সরকার (৪০) ও মেয়ে তাড়াশ সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির ছাত্রী পারমিতা সরকার তুষি (১৫)।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, হত্যাকারীরা পরিকল্পিতভাবে গোপনে তাদেরকে হত্যা করে ফ্লাটে তালা লাগিয়ে দিয়ে যায়। স্বজনরা দুই দিন ধরে তাদের খোঁজ না পেয়ে পুলিশকে খবর দিলে তারা এসে সোমবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে তালা ভেঙে মেঝেতে ও বিছানায় লাশ দেখতে পায়।

তাড়াশ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. নূরে আলম নিহতদের স্বজনদের বরাত দিয়ে বলেন, তাদেরকে গত দুই দিন ধরে না পেয়ে স্বজনরা মোবাইল ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করে ব্যর্থ হন। পরে বাসায় গিয়ে বাইরে থেকে তালা ঝোলানো দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেন। পুলিশ তালা ভেঙে ঘরে ঢুকে দেখতে পান তাদেরকে কুপিয়ে ও জবাই হত্যা করা হয়েছে। স্বজনদের ধারণা, রবিবার রাত থেকে সোমবার দিনের কোনও একসময়ে এ হত্যাকাণ্ড সংঘটিত হতে পারে।

সহকারী পুলিশ সুপার (উল্লাপাড়া-তাড়াশ) অমৃত কুমার সূত্রধর বলেন, তাদের সর্বশেষ শনিবারে দেখা গেছে বলে তার স্বজন ও প্রতিবেশীরা জানিয়েছেন। এরপর যেকোনও সময় হত্যাকাণ্ডটি হয়েছে। আমরা লাশ উদ্ধারে কাজ করছি। এরপরও যেহেতু সিআইডি আসবে এবং ক্রাইম স্পট থেকে আলামত সংগ্রহ করবে- তাই সেভাবেই কাজ করা হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সিরাজগঞ্জ ২৫০শয্যা বিশিষ্ট বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হবে ও থানায় মামলা হবে।