১০ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ || ২৪শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

প্রাইভেট কার ভাড়ায় নিয়ে আর ফেরত না দিয়ে আত্মসাতের অভিযোগে দায়ের হওয়া মামলায় সীতাকুণ্ড উপজেলার ভাটিয়ারি ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি মোহাম্মদ শাহীন (৩৫) ও তার এক সহযোগীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। চুরি করা প্রাইভেট কারটি উদ্ধার করেছে সিআইডি।

গ্রেফতার ছাত্রলীগ নেতা মোহাম্মদ শাহীন সীতাকুণ্ড উপজেলার ভাটিয়ারি এলাকার নুর মোহাম্মদের ছেলে ও আব্দুল মালেক (৫০) কোতোয়ালী থানাধীন ফিরিঙ্গিবাজার এলাকার আব্দুল বারেকের ছেলে। এদের মধ্যে আব্দুল মালেক আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

বুধবার (৪ নভেম্বর) বিকেলে তাদের আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

সিআইডি’র পরিদর্শক মুহাম্মদ শরীফ বলেন, ২০১৭ সালের প্রাইভেট কার ভাড়ায় নিয়ে আর ফেরত না দিয়ে আত্মসাতের অভিযোগে দায়ের হওয়া মামলায় মোহাম্মদ শাহীন ও আব্দুল মালেক নামে দুইজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। দুইজনকে আদালতে হাজির করা হলে আব্দুল মালেক আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন। পরে আদালত তাদের দুইজনকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

পরিদর্শক মুহাম্মদ শরীফ বলেন, ৩ নভেম্বর মামলার ডকেট বুঝে পাই। পরে কোতোয়ালী থানাধীন এসএ প্রাইম হাইটসের পার্কিং থেকে গাড়িটি উদ্ধার করা হয়। এসময় মালেককে গ্রেফতার করা হয়। পরে ভাটিয়ারি এলাকায় অভিযান চালিয়ে শাহিনকে গ্রেফতার করা হয়।

মোহাম্মদ শাহিন ভাটিয়ারি ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি বলে  নিশ্চিত করেছেন উত্তর জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তানভীর হোসেন তপু।