৭ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ || ২২শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

“হাসপাতাল ও বৃদ্ধাশ্রম স্থাপন, অ্যাম্বুলেন্স সেবাদানসহ জনহিতকর নানান রূপকল্প বাস্তবায়নের স্বপ্ন দেখিয়ে রোটারি গভর্নর এম আতাউর রহমান পীর বলেন, “ পোলিও নির্মূলসহ আত্মমানবতার সেবায় রোটারি ক্লাব বিশ্বজুড়ে অমূল্য অবদান রেখে আসছে। তাই রোটারি পরিবারের সদস্য হিসেবে আমাদেরও নিজ নিজ অবস্থান থেকে সমাজের সুবিধাবঞ্চিত মানুষের পাশে দাঁড়াতে হবে।” গত ৩০ আগস্ট বিকেলে চট্টগ্রামশহরের স্টেশন রোডস্থ হোটেল সৈকতে আয়োজিত রোটারি ক্লাব অব চিটাগং হিলটাউনের ডিজি ভিজিট অনুষ্ঠানে রোটারি গভর্নর এসব কথা বলেন। ক্লাব সভাপতি রোটারিয়ান দেবদুলাল ভৌমিকের সভাপতিত্বে ও উপস্থাপনায় গভর্নর আতাউর রহমান রোটারি ইন্টারন্যাশনালের প্রেসিডেন্ট মার্ক ডানিয়্যালের সেই উক্তি “ ROTARY CONNECTS THE WORLD” এর কথা উল্লেখ করে বলেন, “ মানবসেবার মহৎ লক্ষকে সামনে রেখে নিজেদের মধ্যে বন্ধুদের মেলবন্ধন গড়ে তোলার পাশাপাশি উচ্চ নৈতিক মূল্যবোধ গঠন ও বিশ্বব্যাপী ফেলোশিপ প্রদানের মহান ব্রত নিয়ে আদর্শ সেবাপ্রদানের জন্যে আমাদের মানসিকভাবে তৈরি হতে হবে।” অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন ডিস্ট্রিক্ট ফার্স্টলেডি ফিরোজা রহমান, দায়িত্বপ্রাপ্ত ডেপুটি গভর্নর ডা. আবুল কাশেম, দায়িত্বপ্রাপ্ত সহকারি গভর্নর আজিজুর রহমান খান, ক্লাব এডভাইজর রোটারিয়ান আফতাব উদ্দিন সিদ্দিকী, রোটারিয়ান মীর নাজমুল আহসান রবিন, সহকারি গভর্নর সৈয়দ আসাদ মাহমুদ, সহকারি গভর্নর মফিজ সরকার, রোটারিয়ান আইপিপি কামাল উদ্দিন, ডেপুটি গভর্নর মো. নজরুল ইসলাম নান্টু, রোটারিয়ান আমজাদ হোসেন, রোটারিয়ান প্রণব কুমার দেব, রোটারিয়ান নোটন প্রসাদ ঘোষ, রোটারিয়ান মো. শরাফত উল আলম চৌধুরী, রোটারিয়ান মোহাম্মদ দিদারুল ইসলাম, রোটারিয়ান গোলাম মওলা মামুন, রোটারিয়ান মোহাম্মদ আলমগীর, ক্লাব সেক্রেটারি রোটারিয়ান মোহাম্মদ ইউসুফ, রোটারিয়ান মো. রেজাউল করিম, রোটারিয়ান অধ্যাপক প্রদীপ কুমার দাশ, রোটারিয়ান অধ্যাপক জনার্দন কুমার বণিক ও রোটারিয়ান সন্তোষ কুমার ভৌমিক। সভায় ৩০ সেপ্টেম্বর ২০১৯ রোটারি ক্লাব অব চিটাগং হিলটাউনের অভিষেক অনুষ্ঠান উদযাপনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।