৮ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ || ২৩শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

সীতাকুণ্ডের ত্যাগী রাজনীতিক, সাবেক ছাত্রনেতা ও মৎস্য অধিদপ্তরের সাবেক উপ-সহকারি পরিচালক মরহুম আ জ ম বদরুল হাসানের দশম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে নাগরিক স্মরণসভা শনিবার  (১৭ আগস্ট) বিকেলে  সীতাকুণ্ড জেলা পরিষদ মিলনায়তনে  অনুষ্ঠিত হয়। মরহুমের স্মরণে প্রথমে একমিনিট নিরবতা  পালনের মাধ্যমে শুরু হয় অনুষ্ঠানের কার্যক্রম।

সাপ্তাহিক চাটগাঁর বাণীর উদ্যোগে এবং ইপসা’র সহযোগিতায়  এ স্মৃতিচারণমূলক সভায় সভাপতিত্ব করেন চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের সদস্য আওয়ামী লীগ নেতা   আ ম ম  দিলসাদ।

চাটগাঁর বাণী’র প্রধানসম্পাদক রোটারিয়ান  মোহাম্মদ ইউসুফ-এর পরিচালনায় বক্তব্য রাখেন সীতাকুণ্ড উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান  আবদুল্লাহ আল বাকের ভূঁইয়া,কেন্দ্রীয় কৃষক লীগের সহ সভাপতি মোস্তফা কামাল চৌধুরী, ইপসার প্রধান নির্বাহী মো. আরিফুর রহমান, আওয়ামী লীগ নেতা ও সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান মহিউদ্দীন আহমেদ মঞ্জু, বিশিষ্ট সংগঠক  লায়ন মোহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন, বর্নালী ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক শিক্ষানুরাগী এ কে এম মসিউদ্দৌলা, আওয়ামী লীগ নেতা গোলাম রব্বানী, আওয়ামী লীগ নেতা মাস্টার জাহাঙ্গীর ভূঁইয়া, জাসদ নেতা সাইফুল আকতার, আহমেদ হোসেন নিজামী,   মুরাদপুর ইউপি চেয়ারম্যান মো. জাহেদ হোসেন নিজামী (বাবু), সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান রেজাউল করিম বাহার, সীতাকুণ্ড উপজেলা  মাধ্যমিক শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক ও  শেখেরহাট উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধানশিক্ষক আবু বক্কর, সীতাকুণ্ড সমিতি-চট্টগ্রামের সাধারণ সম্পাদক নাছির উদ্দীন মানিক. সীতাকুণ্ড উপজেলা সরকারি  প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক দীপক কান্তি ভট্টাচার্য্য, সাবেক ছাত্রনেতা মো. শাহাজাহান চৌধুরী,   সীতাকুণ্ড উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক  বিমল চন্দ্র নাথ, ইঞ্জিনিয়ার জাহাঙ্গীর আলম, সাবেক ছাত্রনেতা মুহাম্মদ ইউছুপ খান, সীতাকুণ্ড উপজেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক শায়েস্তা খান ও ইপসা’র কর্মী আনিসুল হক প্রমুখ।
বক্তারা বলেন,আ জ ম বদরুল  হাসান ছিলেন বহুগুণের অধিকারী  একজন পরীক্ষিত প্রতিভাবান নেতা।তিনি  ছিলেন দলের জন্য একজন নিবেদিত প্রাণ। সর্বজনশ্রদ্ধেয় এ ব্যক্তিত্বকে আমরা অকালে হারিয়েছি। তার শূন্যতা এখনো কেটে ওঠেনি। দলের যে কোনো আদেশ ও নির্দেশ তিনি অক্ষরে অক্ষরে পালন করতেন। আমরা  তার বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করছি।

আর পড়ুন:   সিনহার সহযোগী সিফাতেরও জামিন

পরিশেষে মরহুম আ জ ম বদরুল হাসানের স্মরণে একটি স্মারকগ্রন্থ প্রকাশ ও বদরুল হাসানের  পরিবারসহ সীতাকুণ্ড আওয়ামী লীগের অসহায় ত্যাগি নেতাদের আর্থিক সহায়তার জন্যে  ফান্ড গঠনের সিদ্ধান্ত হয়।