৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ || ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে ১৮ বছরের মধ্যে সবচেয়ে বেশি ১০ হাজার ৫২৮ জন রোগী হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হিসাব মতে, গত ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে ৬৮৩ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। রোগীর এই চাপ সামাল দিতে হিমশিম খাচ্ছে রাজধানীর হাসপাতালগুলো। রোগী নিয়ে এক হাসপাতাল থেকে আরেক হাসপাতালে ছুটতে হচ্ছে নগরবাসীদের।

সরেজমিনে রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ঘুরে দেখা যায়, হাসপাতালের পরিচালককে নিজের অসহায়ত্বের কথা বলার পর নিজের নয় মাসের মেয়েকে ভর্তির সুযোগ পেয়েছেন মোহাম্মদপুরের বাসিন্দা নাজমা বেগম।

এই হাসপাতালের মতো রাজধানীর অন্যান্য হাসপাতালেও প্রতিদিন বাড়ছে ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। শনিবার সন্ধ্যা নাগাদ প্রায় ২৫০ রোগী ভর্তি রয়েছেন এখানে। বিছানাতো দূরের কথা, পা ফেলার জায়গাও নেই বারান্দায়।

রোগীর চাপ সামাল দিতে এবং হাসপাতালে আসা প্রতিটি রোগীকে চিকিৎসা দিতে বিশেষ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে জানান পরিচালক।

ঢাকা শিশু হাসপাতালেরও একই অবস্থা দেখা যায়। প্রায় ৯০ জন শিশু ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে ভর্তি এখানে।

ফার্মগেটের আইরীন আক্তার তার দুই মেয়েকে ভর্তি করেছেন এই হাসপাতালে। তার এই ভোগান্তির জন্য সিটি করপোরেশনকেই দায়ি করেছেন।

ডেঙ্গু থেকে শিশুদের রক্ষা করতে বাবা-মাকে বাড়তি নজর দেয়ার পরামর্শ দিয়েছেন এই চিকিৎসকরা।

ডেঙ্গুর বিস্তার ঠেকাতে এখনই সরকারকে কঠোর পদক্ষেপ নেওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন রোগীর স্বজনেরা।