৮ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ || ২৩শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

আফগানদের বিপক্ষে প্রত্যাশিত জয়ের পথে রয়েছে বাংলাদেশ। একের পর এক উইকেট হারিয়ে হারের প্রহর গুণছে আফগানিস্তান।

এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ৪৪ ওভারে আট উইকেটে আফগানদের সংগ্রহ ১৯১ রান। জয়ের জন্য তাদের দরকার আরো  ৭২ রান। হাতে রয়েছে মাত্র ৩৬ বল।

স্পিনের বিপক্ষে আফগানিস্তানের দুর্বলতা ফুটে উঠেছে। সাকিব আল হাসানের ঘূর্ণিতে দিশেহারা হয়ে পড়েছে এশিয়ার উদীয়মান শক্তিটি। পর পর তিন উইকেট তুলে নিয়ে আফগানদের খাদের কিনারে ঠেলে দিয়েছেন বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব। টপাটপ ৫ উইকেট তুলে নিয়েছেন তিনি।

সাউদাম্পটনের উইকেট অনুযায়ী বাংলাদেশের তোলা ২৬২ রানকে ভালো সংগ্রহ ভাবা হচ্ছিল।তবে মাশরাফি প্রথম ১০ ওভারই করালেন পেসারদের দিয়ে।১০ ওভার শেষে আফগানদের সংগ্রহ ছিল ৪৮ রান।

তবে সাকিব দৃশ্যপটে আসতেই বদলে যায় পুরো ম্যাচের চেহারা। প্রথম ওভারেই সাকিব ফেরান রহমত শাহকে। ২৪ রান করেন আফগান ওপেনার। হাসমতউল্লাহ শাহেদিকে নিয়ে ইনিংস মেরামত করছিলেন অধিনায়ক গুলবদিন নাইব।

তবে ধীরে খেলা শাহেদি স্ট্যাম্পড হন মোসাদ্দেকের বলে। তিনি করেন ৩১ বলে ১১ রান। ২৯তম ওভারে দলীয় ১০৪ রানে গুলবদিনকে ফেরান সাকিব। ৭৫ বলে ৪৭ রান করেন তিনি। সেই ওভারের তৃতীয় বলে মোহাম্মদ নবীকে ফিরিয়ে আফগানকে একেবারে খাদের কিনারে ফেলে দেন সাকিব। আজ কোনো রানই করতে পারেননি নবী।

এরপর ৩৩তম ওভারে আজগর আফগানকেও ফেরান সাকিব। ২০ রান করেন আজগর।

এর আগে প্রথমে ব্যাট করে বাংলাদেশ ২৬৩ রানের লক্ষ্য দাঁড় করায়। মুশফিক দলের হয়ে ৮৩ রান করেন। সাকিব আল হাসান খেলেন ৫১ রানের ইনিংস। এছাড়া তামিমের ৩৬, মোসাদ্দেকের ৩৫ এবং মাহমুদুল্লাহর ২৭ রানের সুবাদে লড়াইয়ের পুঁজি পায় বাংলাদেশ। এখন বল হাতে মিরাজ-সাকিবদের এই রান যথেষ্ঠ প্রমাণের পালা।