৮ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ || ২৪শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপের বাছাইয়ের শুরুটা দুর্দান্ত হয়েছে বাংলাদেশের মেয়েদের। সোমবার সোমবার (১৭ সেপ্টেম্বর)  বাহরাইনকে ১০-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছে গোলাম রব্বানীর শিষ্যরা। স্বাগতিকদের হয়ে জোড়া গোল করেছেন আনুচিং মোগিনি, মারিয়া মান্ডা ও শামসুন্নাহার জুনিয়র। সাজেদা খাতুন, শামসুন্নাহার সিনিয়র, আনাই মোগিনি ও তহুরা খাতুন করেছেন ১টি করে গোল।

কমলাপুরের বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ সিপাহী মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামে সোমবার ম্যাচের শুরু থেকেই দুর্দান্ত খেলে মারিয়া মান্ডার দল। সেই সুবাধে নিয়মিত বিরতিতে বাহরাইনের জালে একের পর এক গোল করতে থাকেন লাল-সবুজের মেয়েরা। শেষ পর্যন্ত ১০-০ গোলের জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছেন তারা।

এরআগে ২০১৬ সালে ঢাকায় অনুষ্ঠিত এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপের বাছাই টুর্নামেন্টে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়ে চূড়ান্ত পর্বে উঠেছিল বাংলাদেশ। এবারও সেই লক্ষ্যে লাল-সবুজের মেয়েদের। সোমবার বাহরাইনকে উড়িয়ে বলতে গেলে সে পথে একধাপ এগিয়ে গেল গোলাম রব্বানীর শিষ্যরা।

এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপের ‘এফ’-গ্রুপের বাছাইয়ে নিজেদের প্রথম ম্যাচে বাহরাইন হেরেছিল লেবাননের বিপক্ষে ৮-০ গোলে। সোমবার বাংলাদেশের কাছে ১০-০ গোলে হারায় মূল পর্বে ওঠার আশা দলটির শেষ হয়ে গেল।

গতবারের চেয়ে এবার অবশ্য বাছাই পেরিয়ে মূল পর্বে যাওয়াটা কঠিন হয়ে গেছে। গতবার বাছাই পেরুলেই মিলেছিল সরাসরি মূল পর্বে খেলার টিকেট। এবার বাছাইয়ে ৬ গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন ও সেরা দুই দল নিয়ে হবে দ্বিতীয় রাউন্ডে। সেখানে আট দল খেলবে দুই গ্রুপে। দুই গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন ও রানার্সআপ ওঠবে মূল পর্বে।

২০১৯ সালে থাইল্যান্ডে হবে এএফসি অনূর্ধ্ব-১৬ চ্যাম্পিয়নশিপের মূলপর্ব। গত আসরের চ্যাম্পিয়ন উত্তর কোরিয়া, রানার্সআপ দক্ষিণ কোরিয়া ও তৃতীয় হওয়া জাপান সরাসরি খেলবে। স্বাগতিক হওয়ায় সেই সুযোগ পাচ্ছে থাইল্যান্ডও।